নূপুর শর্মা কি সর্বসমক্ষে ক্ষমা চেয়ে নেবেন?

শুক্রবার সুপ্রিম কোর্টের দ্বারস্থ হয়েছেন ভারতীয় জনতা পার্টির প্রাক্তন মুখপাত্র নূপুর শর্মা। তিনি তাঁর বিরুদ্ধে চলা মামলাগুলি বিভিন্ন রাজ্যে স্থানান্তরের দাবি করেছেন। বর্তমানে আদালতে আবেদনের শুনানি চলছে। নূপুর শর্মা একটি টিভি বিতর্কের সময় নবী মোহাম্মদকে নিয়ে তাঁর বিতর্কিত মন্তব্যের জন্য তিনি তদন্তের মুখোমুখি হচ্ছেন। বিজেপিও তাঁকে দল থেকে সাসপেন্ড করেছে।

আদালত নূপুর শর্মার বিরুদ্ধে কঠোর অবস্থান নিয়েছে। আবেদনের শুনানি করার সময় আদালত বলেছে যে, তাঁর জন্য দেশের নিরাপত্তা বিঘ্নিত হয়েছে। তাঁর কারণে সারা দেশে এখন শুধু অস্থিরতা আর অরাজকতা বিরাজ করছে। আইনজীবী মনিন্দর সিং, নূপুর শর্মার পক্ষে উপস্থিত হয়ে বলেছেন যে তিনি তার বক্তব্যের জন্য ক্ষমা চেয়েছেন এবং সেগুলি প্রত্যাহারও করেছেন। এ বিষয়ে আদালতের দাবি, তাঁকে টিভিতে গিয়ে সারা দেশের কাছে ক্ষমা চাইতে হবে।

নূপুর শর্মা

সংবাদ সংস্থা এএনআই-এর মতে, নূপুর শর্মা তাঁর বিরুদ্ধে বিভিন্ন রাজ্যে নথিভুক্ত এফআইআরগুলি দিল্লিতে স্থানান্তর করতে চান। এই দাবি নিয়ে তিনি সুপ্রিম কোর্টে আবেদন করেছেন। এই সময়, প্রাক্তন বিজেপি মুখপাত্র জানিয়েছিলেন যে তাঁকে ক্রমাগত হত্যার হুমকি দেওয়া হচ্ছে। নবীকে নিয়ে বিতর্কিত মন্তব্যের কারণে দেশের বিভিন্ন স্থানে ব্যাপক তোলপাড় হচ্ছে।

28 জুন রাজস্থানের উদয়পুরে কানহাইয়ালাল তেলি নামে এক দর্জিকে দুই যুবক নির্মমভাবে খুন করে। তদন্তে জানা যায়, নূপুর শর্মার সমর্থনে পোস্টের কারণে জীবন হারাতে হয় কানহাইয়ালালকে। শুধু তাই নয়, দুষ্কৃতীরা এই পুরো ঘটনার একটি ভিডিওও করেছিলেন এবং পরে আরেকটি ভিডিও প্রকাশ করে হত্যার দায়ও নেন। এরপর কি হতে চলেছে নূপুর শর্মার পরবর্তী পদক্ষেপ? জানতে চোখ রাখুন বাংলা খবরের পর্দায়।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here