SSC নিয়োগ দুর্নীতি : শিক্ষক বদলির নামে চলছে অবৈধ নিয়োগ?

SSC নিয়োগ দুর্নীতি নিয়ে দিনের পর দিন জলঘোলা হয়েই চলেছে।উঠে আসছে বিভিন্ন অভিযোগ। তবে এবারের অভিযোগ একটু অন্যরকম। শিক্ষক বদলের পেছনে শূন্যপদে নিঃশব্দে চলছে অবৈধ নিয়োগ। গণশক্তির প্রতিবেদন অনুযায়ী, রাজ্যের শিক্ষা সচিব মনীষ জৈনের বিরুদ্ধে একাধিক অভিযোগ উঠে আসছে। তাঁর জারি করা একাধিক নির্দেশিকা দুর্নীতিতে ভরা বলে উল্লেখ করা হয়েছে প্রতিবেদনে।

বছরের পর বছর যাদের বদলি আটকে ছিল হঠাৎ করেই বাড়ির সামনে তাদের পছন্দের বদলি পেয়ে যায়। আর সেই বদলির আড়ালে অবৈধ নিয়োগের পরিকল্পনা হচ্ছিল বলে দাবি প্রতিবেদনের। শিক্ষকরা যাতে পরিবারের সঙ্গে আরও বেশি সময় কাটাতে পারে, সেই উদ্দেশ্য নিয়ে এই নির্দেশিকার সূচনা করা হয়। শিক্ষাসচিব জানিয়েছেন, তৎকালীন শিক্ষামন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায়ের অনুমতিতেই সেই নির্দেশিকা জারি করা হয়েছিল।

লকডাউনের পর শিক্ষা দফতর থেকে একটি পোর্টাল চালু করা হয় যেখানে শিক্ষা দফতরের আধিকারিকরা দ্রুত তথ্য আপলোড করার জন্য প্রবল চাপ দিতে থাকেন এবং পোর্টালে আপলোড হওয়া তথ্যের অ্যাকসেস থাকতো হাতে গোনা কিছু কর্মকর্তাদের কাছে।

SSC scam in Bengal

২০২০ সালের ১৬ অক্টোবর শিক্ষাসচিব আরেকটি নির্দেশিকা জারি করেন। তাতে উল্লেখ করা হয় যে, SSC র কাছে পরিকাঠামো না থাকায় স্কুল শিক্ষকদের বদলি নিয়ন্ত্রণ করবেন স্কুল শিক্ষা দফতরের কমিশনার, যা, SSC -র আইন বিরোধী বলে দাবি। কিন্তু তারপরে লকডাউনের মধ্যেই ৮০০০ শিক্ষকদের বদলি করেন শিক্ষা দফতরের কমিশনার। এই বদলির ফলে তৈরি হওয়া শূন্যপদেই দেদার অবৈধ নিয়োগ চলতে থাকে বলে অভিযোগ।

এক্ষেত্রে শিক্ষাসচিব মনীষ জৈনকে যে কোনও দিন জিজ্ঞাসাবাদের জন্য ডাকতে পারে সিবিআই। তিনি চার বছর ধরে সেই পদে কিভাবে রয়েছেন, সেই নিয়েও উঠছে প্রশ্ন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here